February 23, 2024

‘হরতালে বাসা থেকে বের হতে ভয় লাগে’

তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনের দাবিতে বিএনপি-জামায়াতের ডাকা আজ রোববার (২৯ অক্টোবর) সকাল-সন্ধ্যা হরতালে রাজধানীর বিভিন্ন সড়কে গণপরিবহন কম চলছে। যেসব গণপরিবহন চলছে, সেগুলোতেও যাত্রী কম। এ ছাড়া অন্যান্য দিনের মতো বাসের অপেক্ষায় সড়কে তেমন কোনো যাত্রীকে দীর্ঘ সময় দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা যায়নি।

রোববার (২৯ অক্টোবর) সকালে বনানী, মহাখালী, তেঁজগাও, কাকরাইল, মৎস্য ভবন, প্রেসক্লাব, শাহবাগ, পল্টন এলাকা ঘুরে এমন চিত্র দেখা গেছে। তবে গুলিস্তান, ফুলবাড়িয়া এলাকায় যানবাহন কিছুটা দেখা গেছে। তবে সে অনুপাতে সড়কে যাত্রী ছিল না। গুলিস্তান থেকে ঢাকার বিভিন্ন প্রান্তে যেসব লেগুনা যাত্রী পরিবহন করে, সেগুলোও ফাঁকা দেখা গেছে।

সকাল সাড়ে ১০টা থেকে বেলা ১১টা। জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে ৩০ মিনিট দাঁড়িয়ে দেখা যায়, প্রায় এক মিনিট পরপর একটি করে বাস রাস্তার উভয় পাশ দিয়ে চলাচল করছে। এসব বাসে রাজধানীর বিভিন্ন প্রান্ত থেকে দুই, একজন করে যাত্রী প্রেসক্লাবের সামনে নামছেন। আবার কয়েকজনকে প্রেসক্লাবের সামনে থেকে বাসে উঠতে দেখা গেছে।

মিরপুর-১০ নম্বর থেকে বিহঙ্গ পরিবহনের একটি বাসে করে প্রেস ক্লাবের সামনে নামের নাজমুল হক। পরে পুরান ঢাকার নাজিমুদ্দিন রোডের উদ্দেশ্যে রিকশায় উঠেন। আলাপকালে নাজমুল হক বলেন, হরতালে বাসা থেকে বের হতে ভয় করছিল। কিন্তু ব্যবসার কাজে আজই নাজিমুদ্দিন রোডে যাওয়া দরকার। তাই ঝুঁকি নিয়েই চলে আসছি। তিনি বলেন, স্বাভাবিক সময়ে মিরপুর থেকে প্রেস ক্লাবে আসতে দেড় থেকে দুই ঘণ্টা লাগে। আজ দেখলাম ৩০ মিনিটেই এখানে চলে আসছি। রাস্তা ফাঁকা, লোকজনও কম।

মৎস্য ভবন মোড়ে যাত্রাবাড়ীগামী বাসের জন্য অপেক্ষা করছিলেন আশিকুজ্জামান। তার বাসা সেগুনবাগিচায়। তিনি বলেন, হরতালে সাধারণ মানুষের সবচেয়ে ভোগান্তি পোহাতে হয়। ১০ মিনিট দাঁড়িয়ে আছি। বাস পাচ্ছি না। সিএনজি যেতে চাইলাম, কিন্তু ভাড়া চায় ২০০ টাকা।

গুলিস্তান থেকে সদরঘাটের তানজীল পরিবহনে উঠেন যাত্রী হাফিজ উদ্দিন। তিনি বলেন, দুপুরের লঞ্চে চাঁদপুর যাবো। তিন দিন আগে ব্যবসার কাজে ঢাকা এসেছিলেন তিনি।

About The Author

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *